Search
Close this search box.

অস্ত্র মামলায় ভোলা ও মনিরের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল

শেয়ার করুন

Facebook
X
Skype
WhatsApp
OK
Digg
LinkedIn
Pinterest
Email
Print
Vola-and-Monir
গোয়েন্দা পুলিশের হাতে গ্রেফতার হওয়া এহতেশামুল হক ভোলা ও তার সহযোগি রিকশাচালক মনির হোসেন।

আলোচিত এসপি বাবুল আক্তারের স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতু হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত অস্ত্র সংক্রান্ত দায়ের হওয়া মামলায় আদালতে আভিযোগপত্র জমা দিয়েছে পুলিশ। এতে হত্যাকা-ে ব্যবহৃত অস্ত্র সরবরাহকারী নগরীর বকশির হাট ওয়ার্ড স্বেচ্ছাসেবকলীগ সহ-সভাপতি এহতেশামুল হক ভোলা ও তার সহযোগি রিকশাচালক মনির হোসেনকেই আসামি করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার অস্ত্র মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও বাকলিয়া থানার এসআই মহিম উদ্দিন আদালতের সাধারণ নিবন্ধন শাখায় এ অভিযোগপত্র জমা দেন বলে জানান বাকলিয়া থানার ওসি আবুল মনসুর।

আদালতে জমা দেয়া অভিযোগপত্রে মিতু হত্যার ব্যবহৃত অস্ত্র এবং গুলির উৎস কোথায় এবং কার নির্দেশে হত্যার পরিকল্পনাকারী কামরুল শিকদার প্রকাশ মুছাকে ভোলা অস্ত্র সরবরাহ করে দিয়েছিলেন তা উল্লেখ্য করা হয়নি। তাছাড়া মিতু হত্যার মূল মামলার তদন্ত শেষ না হওয়া এবং হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটন হওয়ার আগেই তড়িগড়ি করে অস্ত্র মামলা অভিযোগপত্র জমা দেয়ার বিষয়টি নানা প্রশ্ন সৃষ্টি করেছে খোদ পুলিশের মধ্যে।

এ ব্যাপারে বাকলিয়া থানার ওসি আবুল মনসুর বলেন, চাঞ্চল্যকর ‘মিতু হত্যায় ব্যবহৃত অস্ত্র সরবরাহকারী হিসেবে এহতেশামুল হক ভোলার নাম রিকশা চালক মনিরের ১৬৪ ধারার জবানবন্দিতে উঠে এসেছে। তবে রিমান্ডেও ভোলা কার নির্দেশে মিতু হত্যার পরিকল্পনাকারী মুছাকে অস্ত্র দিয়েছিলেন, তা স্বীকার করেননি। ভোলা কার কাছ থেকে অস্ত্রগুলো পেয়েছে এবং কার নির্দেশে ভোলা মুছাকে মাহমুদা হত্যায় ব্যবহারের জন্য এগুলো দিয়েছে, আদালতে তা স্বীকার করেননি। মামলার তদন্তেও বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তাই এই মামলায় দুজনকেই আসামি করে অভিযোগপত্র দেয়া হয়েছে।’

MITU MURDER-
বাবুল আক্তারে স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতুর ফাইল ছবি।

আদালত সুত্রে জানাগেছে, জমা দেয়া অভিযোগপত্রে তদন্ত কর্মকর্তা উল্লেখ করেন, ‘মাহমুদা হত্যা মামলার আসামি মোতালেব ওরফে ওয়াসিম গত ২৫ জুন গ্রেফতারের পর স্বীকার করেন, মাহমুদা হত্যায় ব্যবহৃত অস্ত্র-গুলি তাঁদের সহযোগী ও দলনেতা মুছা ঘটনার আগের রাতে ভোলার কাছ থেকে সংগ্রহ করেন। হত্যাকা-ের পর ভোলার কাছে এগুলো ফেরত দেয়া হয়।

এই তথ্যের ভিত্তিতে বাকলিয়া থানার রাজাখালী এলাকা থেকে ২৭ জুন নগরীর বাকলিয়া এলাকা থেকে ভোলা গ্রেফতার করা হয়। তাঁর কাছ থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে একই এলাকার রিকশাচালক মনির হোসেনকে পরদিন ভোরে গ্রেফতার করা হয়। মনিরের কাছ থেকে একটি পিস্তল, একটি রিভলবার ও ছয়টি গুলি উদ্ধার করা হয়। এর মধ্যে পিস্তলটি মাহমুদা হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত হয়েছে। লাইসেন্সবিহীন অবৈধ অস্ত্র-গুলি নিজ হেফাজতে রাখায় আসামি ভোলা ও মনিরের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেয়া হলো।’

উল্লেখ্য গত ৫ জুন রোববার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে ছেলে মাহির (৭) কে নিয়ে স্কুলের উদ্দেশ্যে ঘর থেকে বের হন স্ত্রী মাহমুদা খানম মিতু তারা বাসা থেকে হেটে গাড়িতে উঠার জন্য জিইসির মোড়ে দিকে যাচ্ছিলেন। মাহির বায়োজিদ সেনানিবাস এলাকায় অবস্থিত ক্যান্টেন্টম্যান্ট স্কুলে (কেএন পাবলিক) দ্বিতীয় শ্রেণির ছাত্র।

বাসা থেকে বেরিয়ে মা ছেলে কয়েকশ গজ হেটে যেতেই ওয়েলফুড সামনে মোটর সাইকেল আরোহী ৩ জন তাদের গতিরোধ করে। প্রথমে তারা মোটর সাইকেল দিয়ে ধাক্কা দিয়ে মিতুকে রাস্তায় ফেলে দেয়। এর পর মিতুর হাতে ধরে থাকা তার ছেলে মাহিরকে ছাড়িয়ে নিয়ে দুরে ঠেলে দিয়ে প্রথমে ছুরি দিয়ে আঘাত করে দুর্বৃত্তরা। পরে কানের কাছে পিস্তল ঠেকিয়ে গুলি চালায়। এতে রাস্তায় লুটিয়ে পড়েন মিতু। কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে হত্যাকান্ড ঘটিয়ে দুর্বৃত্তরা মোটর সাইকেল নিয়ে দ্রুত এলাকা ত্যাগ করে।

এ ঘটনায় মিতুর স্বামী বাবুল আক্তার অজ্ঞাতপরিচয় তিন ব্যক্তির বিরুদ্ধে পাঁচলাইশ থানায় হত্যা মামলা করেন। হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত অস্ত্র উদ্ধারের ঘটনায় ভোলা ও রিকশা চালক মনির হোসেনকে আসামি করে বাকলিয়া থানায় অস্ত্র আইনে আরেকটি মামলা করে পুলিশ।

মাহমুদা হত্যা মামলায় গ্রেফতর দুই আসামি ওয়াসিম ও আনোয়ার ২৬ জুন আদালতে জবানবন্দি দেন। এতে তাঁরা উল্লেখ করেন, হত্যাকাণ্ডে ওয়াসিম, আনোয়ার, মোহাম্মদ. রাশেদ, নবী, মোহাম্মদ. শাহজাহান, কামরুল সিকদার ওরফে মুছা ও মো. কালু অংশ নেন। হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত মোটরসাইকেলে ছিলেন ওয়াসিম, মুছা ও নবী। মাহমুদাকে ছুরিকাঘাত করেন নবী। ভোলা অস্ত্র সরবরাহ করেন। তবে ভোলা কার নির্দেশে অস্ত্র সরবরাহ করেছে সে তথ্য অজানাই থেকে গেল।

খেলাধুলা

১৫ জুলা ২০২৪

ঘোষণাটা আগেই দিয়ে রেখেছিলেন লিওনেল মেসি। কোপা আমেরিকার শিরোপা দিয়েই স্মরণীয় করে রাখবেন বন্ধু দি মারিয়ার বিদায়। যেই কথা সেই

সারাদেশ

১৫ জুলা ২০২৪

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জ সীমান্তে খাসিয়া আদিবাসীদের গুলিতে বাংলাদেশি দুই নাগরিক নিহত হয়েছেন। এতে গুরুতর আহত হয়েছেন আরও একজন। রোববার (১৪ জুলাই)

সারাদেশ

১৫ জুলা ২০২৪

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উপর হামলার অভিযোগ উঠেছে করেছে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে৷ এতে বেশ কয়েকজন আন্দোলনরত