Search
Close this search box.

চবিতে ছাত্রলীগের হাতে শিবির কর্মী ছুরিকাহত

শেয়ার করুন

Facebook
X
Skype
WhatsApp
OK
Digg
LinkedIn
Pinterest
Email
Print

timthumb.phpচবি প্রতিনিধি
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগ কর্মীর হাতে এক শিবির কর্মী ছুরিকাহত হয়েছে। এ এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর, পুলিশের এসআই ও কর্মরত এক সাংবাদিক লাঞ্চিত হওয়ার ঘটনাও ঘটেছে। বৃহস্পতিবার বেলা আড়াইটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান অনুষদে এ ঘটনা ঘটে।

আহত শিবির কর্মী আরিফুল ইসলাম অর্থনীতি বিভাগের ২০০৯-১০ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী। বর্তমানে চবি মেডিকেল সেন্টারে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার সকাল ১০ টায় চবির অর্থনীতি বিভাগের মাস্টার্স পরীক্ষা ছিল। পরীক্ষায় শিবির নেতা অংশ নিয়েছে এ খবর ছড়িয়ে পড়লে পরীক্ষা শেষ হবার আগ মুহূর্তে ছাত্রলীগের কর্মীরা অনুষদের সামনে জড়ো হয়।

এ সময় পুলিশ ও প্রক্টরিয়াল বডির সহায়তায় শিবির নেতা আরিফুল হল থেকে বের হলে থাকে মারধর করা হয়। এক পর্যায়ে ছাত্রলীগের এক কর্মী তাকে ছুরিকাহত করে। এতে প্রক্টরিয়াল বডির কয়েকজন সদস্য ও পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মুজিবুর রহমান আহত হন। পরে চিকিৎসার জন্য পুলিশের সহায়তায় শিবির কর্মী আরিফকে চবি মেডিকেলে সেন্টারে নিয়ে যাওয়া হয়।

এ ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর আলী আজগর চৌধুরী জানান, এ ঘটনায় জড়িত সকলের বিরুদ্ধে তদন্ত করে দ্রুত শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মুজিবুর রহমান জানান, এ ব্যাপারে এখনো কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সূত্রে জানাগেছে, বৃহস্পতিবার দুপুরে শিবির কর্মী সন্দেহে একজনকে ছাত্রলীগের বেশ কিছু নেতা কর্মী ছুরিকাঘাত করে। ওই ঘটনার সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে দৈনিক প্রথম আলোর বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি সাইফুল ইসলামকে ছুরি ধরে হুমকি দেয় ছাত্রলীগ নেতা মাহমুদুল হাসান রুপক।

রুপক বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের ২০১৩-১৪ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী ও শাখা ছাত্রলীগের কার্যনির্বাহী সদস্য। তিনি নগর আওয়ামীলীগের সভাপতি এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী ও শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ফজলে রাব্বী সুজনের অনুসারী বলে জানা যায়।

হুমকি প্রাপ্ত সাংবাদিক সাইফুল ইসলাম জানান, সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে রুপক আমাকে ধাক্কা দিয়ে ছুরি ধরে বলেন সে খুন করতে অভ্যস্ত। একেবারে ছুরি ঢুকিয়ে দিবে বলেও আমাকে হুমকি দেয়। এ ঘটনায় আমি প্রক্টর অফিসে লিখিত অভিযোগ দিয়েছি। পাশাপাশি আইনি ব্যবস্থা নিবে বলেও তিনি জানান।

জাতীয়

১৮ জুলা ২০২৪

সরকারের সঙ্গে আলোচনায় বসতে রাজি নন কোটাব্যবস্থা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনকারীরা। তাদের প্ল্যাটফর্ম বৈষম্যবিরোধী ছাত্র আন্দোলনের এক বিজ্ঞপ্তিতে বৃহস্পতিবার (১৮ জুলাই)

জাতীয়

১৮ জুলা ২০২৪

কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের সাথে বসার বিষয়ে সরকারের ইতিবাচক বার্তার পর বৈষম্যবিরোধী ছাত্র আন্দোলনের সমন্বয়ক হাসনাত আবদুল্লাহ বলেছেন, গুলি আর আলোচনা

জাতীয়

১৮ জুলা ২০২৪

কোটা সংস্কারপন্থিদের আন্দোলনে উত্তাল দেশ। এরইমধ্যে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগের সঙ্গে চলছে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া। তারই মধ্যে ধানমনণ্ডির রাপা