Search
Close this search box.

হিযবুত নেতা অধ্যাপক মহিউদ্দিনসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে বিচার শুরু

শেয়ার করুন

Facebook
X
Skype
WhatsApp
OK
Digg
LinkedIn
Pinterest
Email
Print
mohiuddin-hizbut-2
হিযবুত তাহরীরের প্রধান সমন্বয়ক অধ্যাপক মহিউদ্দিন।

হিযবুত তাহরীরের প্রধান সমন্বয়ক অধ্যাপক মহিউদ্দিনসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবিরোধী আইনের একটি মামলায় চার্জ গঠন করেছে আদালত। মঙ্গলবার (২৭ সেপ্টেম্বর) ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক কামরুল হোসেন মোল্লা আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করার মাধ্যমে এ বিচার শুরু হয়। আদালত এ মামলার সাক্ষ্যগ্রহণে ২৪ অক্টোবর পরবর্তী দিন ধার্য করেন।

৬ আসামিদের মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসায় প্রশাসন ইনস্টিটিউটের (আইবিএ) শিক্ষক মহিউদ্দিন আহমেদ ছাড়াও এমএ ইউসুফ খান, সাইদুর রহমান ও কাজী মোরসেদুল হক অভিযোগ গঠনের সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন। তারা নিজেদের নির্দোষ দাবি করে আদালতের কাছে সুবিচার চান।

এছাড়া মামলার অপর দুই আসামি তানভীর আহাম্মদ ও তৌহিদুল আলম চঞ্চল অভিযোগ গঠনের শুনানিতে হাজির না থেকে আইনজীবীর মাধ্যমে সময়েপ্রার্থনা করেন।

বিচারক ওই আবেদন নাকচ করে দুই আসামির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির আদেশ দেন।
লিফলেট ছড়িয়ে জনমনে বিভ্রান্তি ছড়ানোর অভিযোগে ২০১০ সালের ১৯ এপ্রিল উত্তরা মডেল থানায় মামলা করেন উপ-পরিদর্শক আরমান আলী। তদন্ত শেষে আদালতে অভিযোগপত্র দেওয়া হয় ২০১৪ সালে।

সন্ত্রাসবিরোধী আইনের এ মামলায় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন না থাকায় বিচারক অনুমোদনের জন্য তা ফেরত পাঠান। পরে গত ৬ জুলাই ওই অনুমোদন পাওয়া যায়। ৬ সেপ্টেম্বর আদালত অভিযোগ আমলে নেয়।

জাতীয়

১৮ জুলা ২০২৪

সরকারের সঙ্গে আলোচনায় বসতে রাজি নন কোটাব্যবস্থা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনকারীরা। তাদের প্ল্যাটফর্ম বৈষম্যবিরোধী ছাত্র আন্দোলনের এক বিজ্ঞপ্তিতে বৃহস্পতিবার (১৮ জুলাই)

জাতীয়

১৮ জুলা ২০২৪

কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের সাথে বসার বিষয়ে সরকারের ইতিবাচক বার্তার পর বৈষম্যবিরোধী ছাত্র আন্দোলনের সমন্বয়ক হাসনাত আবদুল্লাহ বলেছেন, গুলি আর আলোচনা

জাতীয়

১৮ জুলা ২০২৪

কোটা সংস্কারপন্থিদের আন্দোলনে উত্তাল দেশ। এরইমধ্যে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগের সঙ্গে চলছে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া। তারই মধ্যে ধানমনণ্ডির রাপা